বিড়ি মুখে নিয়ে বিড়ি খাবার জন্য তার মায়ের কাছে অত্যাধিক কান্নাকাটি করলো এক খুদে শিশু, তুমুল ভিডিও ভাইরাল

0

বর্তমানে বিজ্ঞানের এই অগ্রগতির শিখরে মানুষ নিজের বিনোদনের বিষয়গুলিকে নিমিষে হাতের মুঠোয় উপভোগ করতে পারে। বর্তমানে বিনোদন বলতে খেলাধুলা, গানবাজনা,

খবরাখবর সব কিছুই মানুষ এখন তার হাতের মুঠোয় উপভোগ করতে পারে। এখন মানব প্রযুক্তি এতটাই অগ্রগতির শিখরে যে মানুষ একটি যেকোনো স্থানে উপস্থিত থেকে,

তার স্থান পরিবর্তন না করে যে কোনো সময় স্মার্ট ফোনের মাধ্যমে এই সব বিনোদনের বিষয়গুলি উপভোগ করতে পারে।

এই সব বিষয়গুলি মানুষের হাতে আনতে সাহায্য করেছে বিজ্ঞানের এক চমৎকারী অবদান সেটি হল সোশ্যাল মিডিয়া।

এখন মানুষের দেশ বিদেশের খবরাখবর জানতে দূরদর্শন বা খবরের কাগজের উপর নির্ভর করে থাকতে হয় না স্মার্ট ফোনে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে যেকোনো মুহূর্তে যেকোনো স্থানে খবরাখবর জানা যায়।

এখন মানুষকে খেলাধুলা উপভোগ করার জন্য দূরদর্শনের উপর নির্ভর করে থাকতে হয় না স্মার্ট ফোনে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে খেলাধুলা যেকোনো স্থানে যেকোনো সময়ে উপভোগ করা যায়।

এক কথায় বলতে গেলে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে মানুষের মনোরঞ্জনের বিষয়গুলো এখন মানুষ তার হাতের মুঠোয় নিমিষে উপভোগ করা যায়।

এখন মানুষ নিজের ব্যব্যসা অগ্রসর এবং বৃদ্ধি করার জন্য এই সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্য নেন। এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে মানুষ নিজের ব্যবসা ডিজিটাল ব্যবসায় রূপান্তরিত করেছেন।

এই সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে বহু মানুষ রোজকার করেন এবং টাকা উপার্জন করেন। এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে বহু মানুষ বহু মানুষের রোজকারের সুবিধা করে দিয়েছেন।

এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে আপনি আপনার প্রতিভা দর্শকদের কাছে পৌঁছে দিতে পারেন এবং রাতারাতি জনপ্রিয় এবং স্টার হতে পারেন।

বহু প্রতিভাবান ব্যক্তি এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে নিজেদের প্রতিভা মানুষের কাছে তুলে ধরেন এবং রাতারাতি জনপ্রিয় হন এবং স্টার হন।

সম্পূর্ণ বলতে গেলে এই সোশ্যাল মিডিয়া একটি অত্যন্ত সুবিধাপূর্ন মাধ্যম আমাদের কাছে। বহু খুদেদের বিভিন্ন মুহূর্তের ভিডিও ভাইরাল হতে দেখা যায় এই সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ইদানিং এক খুদের একটি হাস্যকর মুহূর্তের ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে এই সোশ্যাল মিডিয়ায়। ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে এক খুদে ধূমপান করার জন্য অত্যাধিক কান্নাকাটি করছে।

ভিডিওটিতে দৃশ্যমান খুদে একটি বিড়ি মুখে নিয়ে তার মাকে ওই বিড়িটিতে আগুন ধরিয়ে দিতে বলছে এবং তার মা যখনই এই বিড়িটি তার মুখ থেকে ফেলে দিচ্ছে,

তখনই ওই খুদে চিৎকার করে হাস্যকর ভাবে কান্নাকাটি করছে। এই সম্পূর্ণ মুহূর্তটি ওই খুদের মা ক্যামেরাবন্দী করে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন।

এই ভিডিওটি নিমিষে ভাইরাল হয় এই সোশ্যাল মিডিয়ায়। সোশ্যাল মিডিয়ার দর্শকরা এই ভিডিওটি দেখে তাদের হাসি থামিয়ে রাখতে পারছেন না, তা সোশ্যাল মিডিয়ার দর্শকরা কমেন্ট করে জানিয়েছেন।

এই ভিডিওটির পরিপ্রেক্ষিতে বিভিন্ন হাস্যকর প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন সোশ্যাল মিডিয়ার দর্শকরা। এই ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় বহু ভাইরাল ভিডিওর তালিকায় জায়গা করে নিয়েছে।

আপনিও এই ভিডিওটি দেখতে পারেন এবং আপনার যদি মন খারাপ থাকে তাহলে ভালো হয়ে যাবে বরং আপনিও আপনার হাসি থামিয়ে রাখতে পারবেন না।

এই ভিডিওটি Mom & Son Blog ইউটিউব চ্যানেলে আট মাস আগে আপলোড করা হয়েছে। এই ভিডিওটিকে তিন লাখেরও বেশি মানুষজন দেখেছেন এবং উপভোগ করেছেন।

এই ভিডিওটিকে তিন হাজারেরও বেশি মানুষজন লাইক করেছেন এবং বহু মানুষজন কমেন্ট করে তাদের মতামত জানিয়েছেন।
এই ভিডিওটিকে বহু মানুষজন শেয়ার করে অন্যদের এই ভিডিওটি দেখার সুযোগ করে দিয়েছেন।